বাবা-মায়ের এনআইডি ছাড়াও করা যাবে শিক্ষার্থীদের ইউনিক আইডি

ইউনিক আইডি

ষষ্ঠ থেকে দ্বাদশ শ্রেণি পর্যন্ত দেশের সকল শিক্ষার্থীর জন্য ‘ইউনিক আইডি’ তৈরির উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। তবে, এই ‘ইউনিক আইডি’ নিতে বাবা মায়ের পরিচয়পত্র লাগবে। কিন্তু যাদের বাবা মা নেই অথবা বিচ্ছেদ হয়েছে, তাদের আইডি তৈরি করতে জটিলতা দেখা দিয়েছে। তবে, শেষ পর্যন্ত সিদ্ধান্ত হয়েছে, যাদের বাবা মা নেই অথবা অথবা বিচ্ছেদ হয়েছে তাদের এনআইডি ছাড়াও তথ্যও এন্ট্রি করা যাবে।

এ বিষয়ে জাতীয় শিক্ষা তথ্য ও পরিসংখ্যান ব্যুরোর (ব্যানবেইস) আইইআইএমএস প্রকল্পের উপ-পরিচালক ড. মো. নাসির উদ্দিন গনি জানান, আমরা চেষ্টা করছি, ইউনিক আইডির কাজটি সহজ করতে। আমাদের ওয়েবসাইটের নির্দেশিকায় বলা হয়েছে, যাদের বাবা মা আছে তারা দুজনের এনআইডি নম্বর দিবে কিন্তু যাদের বাবা অথবা মা নেই তারা যে কোন একজনেরটা দিবেন। যাদের বাবা বা মা কেউ নেই তারা তাদের একজন আত্মীয়ের এনআইডি নম্বর দিলেই হবে। মোটকথা একজনের দিলেই হবে।

মহামারি করোনার কারণে শিক্ষার্থীদের ইউনিক আইডি তৈরির কাজটি কিছুটা দমে গেলেও এখন তা পুরোদমে চলছে। এর অংশ হিসেবে সফটওয়্যারে শুরু হয়েছে ডাটা এন্ট্রির কাজ।

প্রসঙ্গত, প্রত্যেক শিক্ষার্থীর মৌলিক ও শিক্ষাসংক্রান্ত সকল তথ্য ইউনিক আইডিতে পাওয়া যাবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button